চারু ও আত্মজঃ নকশালবাড়ির পঞ্চাশ বছর পরে এক বিপ্লবী পিতার উত্তরাধিকারের কথা ।। অনুবাদঃ রোকেয়া সামিয়া

২৮ জুলাই, ১৯৭২ সন্ধ্যা ঘনিয়ে এসেছিলো সেদিনও। সশস্ত্র পুলিশের কব্জায় থাকা নিরাপত্তার এক কঠিন গোপনীয় আবহে কলকাতার এসএসকেএম মেডিকেল কলেজ থেকে কেওড়াতলা শ্মশানে নিয়ে আসা হচ্ছে এক প্রাণহীন দেহ। মনে হচ্ছিলো যেন কেউ শহরে কার্ফু জারি করেছে। অনেকক্ষণ অপেক্ষার পর নিষ্প্রাণ দেহটি পৌঁছুল শ্মশানে। সেখানেও প্যারামিলিটারি আর অস্ত্রে সজ্জিত পুলিশের প্রহরা। এক নারী, দুজন মেয়ে …