কুকুর সংখ্যা (দ্বিতীয় পর্ব) সম্পাদকীয় ।। শিমন রায়হান

ছেলেবেলায় পড়া অজ্ঞাতনামা সেই ইংরেজি গল্পটির কুকুর ডায়মন্ডের কথা মনে পড়ে। যে কি-না ফেলে যাওয়া টাকার ব্যাগের কথা প্রভুকে স্মরণ করিয়ে দিতে গিয়ে ভুল বোঝাবুঝির শিকার হয় এবং প্রভুর গুলিতে প্রাণ ত্যাগ করে। ওই গল্পের ঊনসত্তর পাতার মতো যেকোন ঊনসত্তর পাতা আজও সমান শোকময়। কিংবা আরো পরে পড়া অধীর বিশ্বাসের আত্মজীবনী থেকে ওঠে আসা কুকুর ভোম্বল, দেশভাগের সময় যে বাড়ির লোকেদের গ্রামের শেষপ্রান্তে বিদায় দিয়ে কী ভেবে ফিরে গিয়েছিল শুন্য বসতভিটায়। যেকোন বিদায়েই আসলে সে-ই এগিয়ে দেয়, আর ফিরে যায় তাঁর একান্ত মনিবের পরিত্যক্ত গেরস্থালির ভেতর।

প্রভুর প্রতিনিধি হিসেবেই তাঁর সঙ্গে সাক্ষাত ঘটে আমাদের। রণজিৎ দাশের কবিতার সেই সরল কুকুরটি, যে ‘বিকেল’ বোঝে কিন্তু ‘পরশু’ বোঝে না, তাঁর কাছে প্রভুর দিশা পাওয়া যায়। মুহূর্তেই হওয়া যায় তাঁর নিবেদন আর নিষ্পাপ বোকামির আশেক। কিংবা অপেক্ষার রাজধানী শিবুয়া স্টেশনে অতিক্রান্ত হতে দেওয়া যায় মেয়াদ। আদতে অস্তিত্বের সমূহ চেতনাই এক অধিকতর শিবুয়া স্টেশন। যদিও স্বর্গে অবাঞ্চিত সে, তবু গুপ্ত ধ্যানের তা-সিনে প্রভূর দৌবারিক হিসেবে দেখা যায় তাকে।

সম্ভবত মানুষকে সবচে বেশি বুঝেছে কুকুর। আর মানুষ যাকে সবচে কম বুঝেছে সে-ও কুকুর; যদিও পরস্পর বিরোধী এই যাপন-যাত্রায় তারা চূড়ান্ত অর্থে দূরত্বপ্রবণ নয়। কুকুরের ভূয়োদর্শী কান্না তাই মানুষের মরমী সন্ধানের সঙ্গে মিলিত হয়ে যায়। মানুষ তার পাহাড়সম ইগো, হিংসা, কাম, প্রেম আর অপ্রেম সমেত বিলুপ্ত হবে একদিন! অস্তিত্ববাজির বাস্তুভূমিতে তবু মানুষ ও কুকুরের এই সহাবস্থান দীর্ঘজীবী হোক।

চলতি বছরের বইমেলাকালীন চিন্তা শেষোব্দি রূপায়িত হতে পারলো সেপ্টেম্বরে। নানা চড়াই উতরাই পেরিয়ে কুকুর দাঁড়ালো তবে। নির্ধারিতরা শেষ সময়ে এসে লেখা দিতে না পারায় আঁটকে গেল- ডায়লগ অব ডগস, ডগ স্কোয়াড, রিপভ্যানের কুকুর, প্রভুর দৌবারিকের মতো লেখাগুলো। আবার কেউ কেউ বিষয় থেকে সরে যাওয়াতেও কিছু লেখা বাইরে থেকে গেলো। কুকুর বিষয়ে লেখার মতো অনেক বুজুর্গ লেখক সন্দেহাতীত ভাবেই এ সংখ্যার বাইরে থেকে গেলেন। এই ফাঁকে অপেক্ষাকৃত তরুণদের ওপর নির্ভর করাটাকেই একটা নিরীক্ষা হিসেবে নেওয়া গেলো। বরাবরের মতোই এ পর্বের অলংকরণগুলো করে রোশনাই এনে দিয়েছেন রাজীব দত্ত। সম্পৃক্ত সবাইকে কৃতজ্ঞতা। সংখ্যার দ্বিতীয় ও আপাতত শেষপর্বটিও যথারীতি প্রাপ্তমনস্ক পাঠকের গন্তব্যে নিবেদিত।

– শিমন রায়হান
সম্পাদক, কুকুর সংখ্যা

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!

Discover more from

Subscribe now to keep reading and get access to the full archive.

Continue reading